সাধিত শব্দ - প্রকৃতি ও প্রত্যয়

 সাধিত শব্দ কাকে বলে? 

মৌলিক শব্দ ব্যতীত অন্য সব শব্দকেই সাধিত শব্দ বল। যেমন-হাতা, গরমিল, দম্পতি  

সাধিত শব্দ দুই প্রকার 

নাম শব্দ ও ক্রিয়া। প্রত্যেকটি সাধিত শব্দ বা নাম শব্দের ও ক্রিয়ার দুটি করে অংশ থাকে। যেমন প্রকৃতি ও প্রত্যয়

প্রকৃতি কাকে বলে ? 

যে শব্দকে বা কোন শব্দের যে অংশকে আর কোন ক্ষুদ্রতর অংশে ভাগ করা যায় না তাকে প্রকৃতি বলে। 

প্রকৃতি আবার দুই প্রকার নাম প্রকৃতি ও ক্রিয়া প্রকৃতি। ক্রিয়া প্রকৃতিকে ধাতু বলা হয়। 

নাম প্রকৃতির উদাহরণ কোনগুলো?

নাম প্রকৃতি: হাত+ল=হাতল, ফুল+এল=ফুলেল, মুখ+র=মুখর

ক্রিয়া প্রকৃতি কাকে বলে? ক্রিয়া প্রকৃতির উদাহরণ 

√জম্+আ=জমা, √লিখ্+ইত=লিখিত

প্রত্যয় কাকে বলে? 

শব্দ গঠনের উদ্দেশ্যে শব্দ বা নাম প্রকৃতির এবং ক্রিয়া প্রকৃতির পরে যে শব্দাংশ যুক্ত হয় তাকে প্রত্যয় বলা হয। 

বাংলা শব্দ গঠনে দুই প্রকার প্রত্যয় পাওয়া যায় যেমন তদ্ধিত প্রত্যয় ও কৃৎ প্রত্যয়।


তদ্ধীত প্রত্যয় কাকে বলে 

শব্দমূল বা নাম শব্দের সঙ্গে যে প্রত্যয় যুক্ত হয়ে নতুন শব্দ তৈরি করে তাকে তদ্ধিত প্রত্যয় বলে। যেমন,হাতল,ফুলেল,মুখর।

কৃৎ প্রত্যয় কাকে বলে?

কৃৎ প্রত্যয় : ক্রিয়ামুল বা ধাতুর সাথে যে প্রত্যয় যুক্ত হয়ে নতুন শব্দ তৈরি করে তাকে বলে কৃৎ প্রত্যয়।যেমন,চলন্ত, জমা,লিখিত।

তদ্ধিত সাধিত শব্দকে বলা হয় তদ্ধিতান্ত শব্দ। এবং কৃৎ প্রত্যয় সাধিত শব্দকে বলে কৃদন্ত শব্দ। 

Blogger দ্বারা পরিচালিত.