মহারাণী শরৎসুন্দরী

মহারাণী শরৎসুন্দরী

মহারাণী শরৎসুন্দরী ১২৫৬ সালের ২৩শে আশ্বিন, রাজশাহী জেলার অন্তর্গত বিখ্যাত পুঁটিয়া গ্রামে  জন্ম গ্রহণ করেন।তার পিতার নাম পিতা ভৈরবনাথ সান্যাল।বাবা চেষ্টা ও অনুপ্রেরণায় শরৎসুন্দরী সুশিক্ষিত হউন।নানা গুণের অধিকারী ছিলেন এই মহারাণী। মাত্র ছয় বৎসর বয়সে ১২৬২ সালে পুঁটিয়ার জমিদার কুমার যোগেন্দ্রনাথের সাথে শরৎসুন্দরীর বিবাহ হয়। নিজ গুণ ও ভালোবাসা দিয়ে তার স্বামীর পাশ্চাত্য মোহ দূর করেন।  মাত্র ১৩ বৎসর বয়সে শরৎসুন্দরী বিধবা হউন।  হিন্দুবিধবার সেবায়, দেব- মন্দির-প্রতিষ্ঠায় এবং পূজাপার্ব্বণে অর্থব্যয়ে  তিনি মুক্তহস্ত ছিলেন।  তার এই পরোপকারী  গুণের কারণে সরকার তাঁকে 'মহারাণী' উপাধী প্রদান করেন । ১২৯০ সালে, ২৫শে ফাল্গুন, এই মহীয়সী বঙ্গললনার মৃত্যু হয়।

Blogger দ্বারা পরিচালিত.